শুক্রবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৯:২৫ অপরাহ্ন

আত্মহত্যার হার বেড়ে যাওয়া করোনার নেতিবাচক প্রচারণা দায়ী

রিপন রুদ্র
  • আপডেট সময় শনিবার, ১১ সেপ্টেম্বর, ২০২১
  • ৫০
আত্মহত্যার হার বেড়ে যাওয়া করোনার নেতিবাচক প্রচারণা দায়ী
ক্রাইম এক্সপ্রেস

সরকারি-বেসরকারি জরিপে দেখা যাচ্ছে, আত্মহত্যার প্রবণতা বেড়েছে। সবাই প্রায় একমত, আত্মহনন বাড়ার কারণ করোনা মহামারী। বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরোর তথ্য মতে, ২০২০ সালে ১১ হাজার ২৫৯ জন আত্মহত্যা করে। আগের বছর ২০১৯ সালে এ সংখ্যা ছিল ৯ হাজার ৩১০ জন। সেই হিসাবে আত্মহত্যার ঘটনা ১৭ দশমিক ৩১ শতাংশ বেড়েছে। করোনার শুরুতে দেশব্যাপী এক ভয়াবহ পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়। জনসাধারণের বড় একটি অংশের মধ্যে উন্মত্তের মতো আচরণ লক্ষ করা যায়।

লক্ষণীয় প্রথম বছরের করোনায় মৃত মানুষের চেয়ে আত্মহত্যায় প্রাণ হারানো মানুষের সংখ্যা বেশি। এতে এটাই প্রমাণ হয় করোনার চেয়ে আত্মহত্যাই বেশি ভয়াবহ। এরপরও মানুষ করোনা থেকে বাঁচতে পাগলের মতো আচরণ করেছে। অযৌক্তিক ভীতি এর কারণ। করোনা ভীতি এতটাই স্বার্থপর করে তোলে- বাবা-মা, ভাইবোন, প্রতিবেশীর চেয়ে নিজেদের জীবন বাঁচানো সর্বাধিক প্রাধান্য পায়। মানুষের ভেতরে এমন ধারণা ঢুকিয়ে দেয়া হয়েছিল, করোনা রোগীর সংস্পর্শে আসামাত্রই নির্ঘাত মৃত্যু। অথচ করোনায় আক্রান্ত ব্যক্তির মাত্র এক-শতাংশ মারা গেছে। এ হার অন্য বহু রোগের তুলনায় নগণ্য। এমনো হয়েছে, করোনা সন্দেহ হওয়ার সাথে সাথে বাবা-মাকে ঘরে তালাবদ্ধ করে রেখেছে সন্তান। অনেকে নিকটাত্মীয়কে রাস্তায় ফেলে গেছে। কেউবা হাসপাতালে নিকটজনকে ফেলে পালিয়েছে।

এমনো ঘটনাও ঘটেছে বিশ্বাস করার মতো নয়। দেখা গেছে যে চিকিৎসক প্রাণবাজি রেখে করোনা রোগীদের চিকিৎসা করেছেন; সেই তার করোনা শনাক্ত হওয়ার খবর পেয়ে প্রতিবেশীরা তাকে এলাকা থেকে বের করে দিতে মিছিল করেছে। বাসায় ইটপাটকেল নিক্ষেপ করেছে। কতটা নির্বোধ হলে মানুষ এমন আচরণ করতে পারে। এ ধরনের ঘটনা একটি দু’টি নয় অসংখ্য। সেটা সারা দেশে ঘটেছে।

আমাদের জাতীয় মানস এমন হয়ে দাঁড়ায়, শুধু শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের আঙ্গিনায় করোনা ছোঁয়াচে। আর ব্যবসায়-বাণিজ্য, শিল্পপ্রতিষ্ঠান, শপিংমল ও যানবাহনে সমস্যা নেই। এতে করে জাতির বিপুল একটা অংশ ঘরবন্দী হয়ে পড়ে। আত্মহননের যেসব জরিপ করা হয়েছে সেখানে দেখা দরকার কতজন ছাত্র আত্মহত্যা করেছেন।

আরো পড়ুন: মানুষ এখন আর ভিক্ষা নিতে চায় না: মতিয়া চৌধুরী

শেয়ার করুন

আরো খবর