শুক্রবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১০:০৩ অপরাহ্ন

বনানীতে অনুমোদনহীন বকুল ভিলায় গেষ্ট হাউসের নামে অশ্লীলতা

নিজস্ব প্রতিবেদক:
  • আপডেট সময় শনিবার, ১১ সেপ্টেম্বর, ২০২১
  • ১০৫
বনানীতে অনুমোদনহীন বকুল ভিলায় গেষ্ট হাউসের নামে অশ্লীলতা
ছবি সংগ্রহিত

বনানীর ডি-ব্লকের ১৫ নং সড়কের ৬৫ নং বকুল ভিলা নামের বভনে অনুমোদনহীন গেষ্ট হাউসের নামে চলছে অশ্লীলতা বাণিজ্য। খোঁজ নিয়ে জানা যায়, রাজধানী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ (রাজউক) ও ঢাকা মহানগর পুলিশের (ডিএমপি) নির্দেশনা উপেক্ষা করে বকুল ভিলায় কোনো সাইনবোর্ড ছাড়াই চলছে ওই গেষ্ট হাউস। নিচ তলা ও দ্বিতীয় তলায় থাকেন বাড়ির মালিক। ভবনের তৃতীয় ও চতুর্থ তলায় চলছে গেষ্ট হাউস।

তবে মানবাধিকার সংগঠন ও সংশ্লিষ্টরা বলছেন, শুধু বনানীর ওই ভবন নয়, বনানী ও গুলশানে এভাবেই আবাসিক ভবনে গড়ে উঠেছে অবৈধ হোটেল, গেষ্ট হাউস। পুলিশের নাকের ডগায় এভাবে হোটেল, রেস্ট হাউস, গেষ্ট হাউস গড়ে উঠলেও কোনো পদক্ষেপ নেই প্রসাশনের। তবে রাজউক বলছে, প্রকাশ্যে আবাসিক এলাকায় বাণিজ্যিক কর্মকান্ড পরিচালনা করলে আইনানুযায়ী ব্যবস্থা নিচ্ছে রাজউক। গোপনে হলে তা দেখার দায়িত্ব পুলিশের।

ঢাকা মহানগর পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, রাজধানীর হোটেল কিংবা গেষ্ট হাউসগুলোতে অতিথির নাম-ঠিকানা লেখা, ছবি তোলা, এনআইডি, পাসপোর্ট বা ড্রাইভিং লাইসেন্সের কপি, ফোন নম্বর রাখা ও ফোন দিয়ে নম্বর যাচাই করাসহ আটটি নির্দেশনা রয়েছে। পাশাপাশি ভাড়াটিয়া নিবন্ধন ফর্মে দেয়া তথ্য অনুযায়ী বাড়িগুলোতে ভাড়াটিয়ারা থাকছেন কিনা সেটিও দেখে পুলিশ। তবে বাইরে থেকে দেখে বোঝার কোনো উপায় নেই যে ভিতরে কি হচ্ছে।

ভবনের মালিক সূত্রে জানা যায়, তৃতীয় ও চতুর্থ তলা গেষ্ট হাউস হিসেবে বিমানসহ বেশ কয়েকজনকে ভাড়া দেয়া হয়েছে। তবে কে কীভাবে এটা চালায় তা আমি জানি না। কখন কোন গেষ্ট আসেন সে ব্যাপারে আমার কোনো ধারণা নেই। অথচ আবাসিক এলাকায় আবাসিক ভবনে গেষ্ট হাউস চালানো আইনের স্পষ্ট লঙ্ঘন এবং মাদক থেকে শুরু করে নারী বাণিজ্যও থেমে নেই উক্ত গেষ্ট হাউসটিতে।

সম্প্রত্তি, তবে যারা গেষ্ট হাউজটি নিয়েছেন তারা প্রত্যেকেই নারী চক্রের সাথে জড়িত। পূর্বে এরা বনানী, কাওরানবাজার, আশুলিয়া এবং গাজীপুরে ধিমানসহ বেশ কয়েকজন মিলে খারাপ আবাসিক হোটেল বাণিজ্য করতেন। এবার বাড়িটি ভাড়া নিয়ে গেষ্ট হাউসে রুপান্তর করে স্বর্ট গেষ্ট এবং স্কর্ট সার্ভিসের নামে চালিয়ে আসছেন অশ্লিলতা বাণিজ্য। অনুসন্ধানে আরো জানা জায়, ইতিপূর্বে ২০১৮ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে একটি ধর্ষনের ঘটনাও ঘটে গেষ্ট হাউসটিতে। আরো আছে…

আরও পড়ুন: ৯/১১ : দুই দশক পরেও আলোচনায় যেসব ষড়যন্ত্র তত্ত্ব

শেয়ার করুন

আরো খবর