সোমবার, ২৮ নভেম্বর ২০২২, ০১:৪৫ অপরাহ্ন

জাহিদ হাওলাদারে এর প্রকাশিত কবিতা শাপলার আত্নজীবনী।

মো: মাছুম বিল্লাহ, নিজস্ব প্রতিবেদক:
  • আপডেট সময় বৃহস্পতিবার, ২২ সেপ্টেম্বর, ২০২২
  • ৬৩

শাপলার আত্মজীবনী

মো: জাহিদ হাওলাদার

শত কোটি, বিলিয়ন মিলিয়ন
বছোর অপেক্ষার পরে
আসিলাম এই পেরুলার তরে।
ভাবিতাম কতই না স্নিগ্ধ এই পৃথিবী।
হাসি মুখে সু-গন্ধা, আর সু- গন্ধি
ছড়িয়াছি মনের সুখে।
দুপুর আসে বিকেল হয়,
অবিরাম মনে, মিষ্ঠি ময়া ছড়াই।
রাতের জোছনার তালে তালে
জোনাকী ভেসে, নাচিলাম কত,কোমর দুলায়ে।
তোমারই মোনিষ্ঠো হইব বলে।
সকাল বেলার পাঁপড়ি গুলো পেখম মিলিয়া
শীশির বেজা কন্ঠে, ময়ূরী বেসে,
হেলে দুলে দাড়ীয়ে আছি
তুমি আসিবে বলে।
মাঝি আসিল তোরিতে তোরি ভরিল।
কোমল হাতের পরশ বুলাল
ছিড়ল কতো পাঁপড়ি
মাথায় বাদীলো টুকলি,আরো কতো কি?
তোবুও আমি তোমারই অনুগত
আমি আনন্দিত,আমি উল্লাসিত
আমি আনন্দো আনন্দো ভাসিয়া গালাম, সুখ চিত্ত।
আমি তোমারি দারস্ত।
আমারই জীবন সবই করলাম
তোমাই জন‍্য উতস্বর্গ।
তবুও তুমি চলিয়া গেলে, তোমারি ইচ্ছে মতে।
ক্ষত বিক্ষত করে দিলে আমার হৃদয়
চাহিয়া রইলাম তোমারই পথ পানে
তুমি আসিবে এই ভেবে।
তবুও তুমি চলে গালে তোমর ইচ্ছে মতে।
আজ আমি বড়ই একা হয়ে গেলাম।
আজি আমি সন্ন‍্যাসি ভেসে ,
দাডিয়ে আছি বিধাতার দয়াতে
সাতলার শাপলার বিলে।

শেয়ার করুন

আরো খবর