সোমবার, ০৬ ডিসেম্বর ২০২১, ০৯:২১ পূর্বাহ্ন

শেখ হাসিনার সরকার বাংলাদেশের সবচেয়ে নারীবান্ধব সরকার : পররাষ্ট্রমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিনিধি:
  • আপডেট সময় রবিবার, ২৪ অক্টোবর, ২০২১
  • ১৯

পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আবদুল মোমেন বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার বাংলাদেশের সবচেয়ে নারীবান্ধব সরকার। আজকের বাংলাদেশে বিচার বিভাগ, নির্বাহী বিভাগ, আইনসভাসহ সব ক্ষেত্রে নারীর অংশগ্রহণ দৃশ্যমান। বর্তমান সরকারের নারীবান্ধব নীতির কারণেই এটা সম্ভব হয়েছে।

রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে গতকাল শনিবার উইমেন অ্যান্ড ই-কমার্স ফোরামের (উই) চতুর্থ প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষ্যে ‘জয়ী অ্যাওয়ার্ড ২০২১’ প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় পররাষ্ট্রমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

ড. মোমেন বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার প্রথম ক্ষমতায় এসেই প্রাতিষ্ঠানিক ও অর্থনৈতিকভাবে নারীর ক্ষমতায়ন নিশ্চিতকরণের এজেন্ডা গ্রহণ করেছিলেন। শেখ হাসিনার প্রথম সরকারের সময়ে জাতীয় মহিলা উন্নয়ন নীতি প্রণয়ন এবং দ্বিতীয় মেয়াদে শেখ হাসিনার ব্যক্তিগত নির্দেশনায় নারী উদ্যোক্তাদের জন্য জয়ীতা কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়।

বিদেশে বাংলাদেশের নারীদের কর্মসংস্থানে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পদক্ষেপের কথা উল্লেখ করে ড. মোমেন বলেন, জাতিসংঘের শান্তি রক্ষা মিশনগুলোতেও বর্তমানে আমাদের নারীদের নিযুক্ত করা হচ্ছে। তিনি বলেন, বর্তমান সরকার টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা অর্জন ও নারীর ক্ষমতায়নের পাশাপাশি নারীদের বিরুদ্ধে সবধরনের বৈষম্য দূরীকরণ বিষয়ক কনভেনশন (CEDAW) এবং বেইজিং প্ল্যাটফর্ম ফর অ্যাকশন বাস্তবায়নে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী আরও বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সময়োপযোগী পদক্ষেপের কারণে বাংলাদেশ আজ তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তির ব্যবহারে অনন্য উচ্চতায় পৌঁছেছে। চলমান অতিমারির মধ্যেও জীবনের প্রায় সবক্ষেত্রে দেশের মানুষ ডিজিটাল বাংলাদেশের সুফল ভোগ করছে উল্লেখ করে ড. মোমেন বলেন, ই-কমার্স আজকের বাংলাদেশের প্রসারমান অর্থনীতির একটি গুরুত্বপূর্ণ অনুষঙ্গে পরিণত হয়েছে। দ্রুত বর্ধনশীল ই-কমার্সে নারীদের ব্যাপক অংশগ্রহণ নারীর ক্ষমতায়ন ও আর্থ-সামাজিক উন্নয়নে বিশেষ ভূমিকা রাখছে।

আরও পড়ুন: কলম্বিয়ার মাদক সম্রাট ‘অতোনিয়েল’ আটক

শেয়ার করুন

আরো খবর