শনিবার, ২৫ জুন ২০২২, ১১:৩৫ অপরাহ্ন

২৭ ফেব্রুয়ারি থেকে অনলাইনে মিলবে বিমানের টিকিট

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • আপডেট সময় বৃহস্পতিবার, ২৪ ফেব্রুয়ারী, ২০২২
  • ১০৬

বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স তাদের নতুন প্যাসেঞ্জার সার্ভিস সলিউশন (পিএসএস) চালু করতে যাচ্ছে। বর্তমান পিএসএস ‘সিটা’ থেকে ভিন্ন আরেক প্রতিষ্ঠান ‘সেবর’-এ এই কার্যক্রম স্থানান্তর শুরু হবে ২৬ ফেব্রুয়ারি থেকে। ফলে পরদিন ২৭ ফেব্রুয়ারি থেকেই যাত্রীরা অনলাইনে টিকিটিং, বুকিং, চেক-ইন, ওয়েব সার্ভিস ইত্যাদি সেবা পাবেন। তবে ওয়েব সাইটে টিকিট কাটার সুবিধা থাকলেও মোবাইল অ্যাপলিকেশনে এখনই চালু হচ্ছে না।

বিমান জানিয়েছে, বর্তমান পিএসএস ‘সিটা’ থেকে তাদের তথ্য ভাণ্ডার ‘সেবর’ এ স্থানান্তর করার জন্য ২৬ ফেব্রুয়ারি বিকাল ৩টা ৪৫ মিনিট থেকে কাজ শুরু হবে। চলবে ২৭ ফেব্রুয়ারি রাত ৩টা পর্যন্ত। এ কারণে প্রায় সাড়ে ১১ ঘণ্টা বিমানের সব চ্যানেল থেকে টিকিট বুকিং, রিজার্ভেশন ও টিকিট ইস্যু সংশ্লিষ্ট কার্যক্রম বন্ধ থাকবে।

বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের উপ-মহাব্যবস্থাপক (জনসংযোগ) তাহেরা খন্দকার জানিয়েছেন, বিশেষ ব্যবস্থায় এই সময়েও সিডিউল অনুযায়ী এয়ারপোর্টের চেক-ইনসহ বিমান পরিবহন সংক্রান্ত কার্যক্রমগুলো যথারীতি চালু থাকবে এবং সব ফ্লাইট যথাসময়ে গমন ও প্রত্যাবর্তন করবে।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, বিমানের নিজস্ব ওয়েব সাইটের পাশাপাশি এখন মোবাইল অ্যাপসের মাধ্যমে টিকিট বিক্রির উদ্যোগ নেওয়া হচ্ছে। তবে সেটি বাস্তবায়নে ৩ বছর সময় লাগে। এই অ্যাপস বানাতে ২০১৭ সালের ৪ জানুয়ারি ৬ সদস্যের একটি কমিটি করেছিল বিমান। ২০১৮ সালে ১৯ ফেব্রুয়ারি মাসে চালু হয় ‘বিমান হলিডেজ।’ নামে অ্যাপটি। বিমানের তৎকালীন চেয়ারম্যান এয়ার মার্শাল অব. মোহাম্মদ ইনামুল বারী আনুষ্ঠানিকভাবে এ কার্যক্রম উদ্বোধন করেন। বিমানের এই হলিডে উইং পরিচালনার দায়িত্ব পায় ট্রাভেল শপ। ট্রাভেল শপের এক্সিকিউটিভ চেয়ারম্যান গ্রুপ ক্যাপ্টেন অব. নাজমুল আনাম উপস্থিত থেকে এ কার্যক্রম উদ্বোধন করেন। পরে এই প্রতিষ্ঠানকে দায়িত্ব দেওয়া হয় বিমানের ওয়েব সাইট ও মোবাইল অ্যাপে টিকিট বিক্রির কার্যক্রম পরিচালনার। ২০১৯ সালে এই প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে এ সংক্রান্ত চুক্তিও হয়। আড়ম্বর অনুষ্ঠানের মাধ্যমে ২০১৯ সালের ডিসেম্বর মাসে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের মোবাইল অ্যাপলিকেশন উদ্বোধন করেছিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তবে গত ১০ আগস্ট থেকে অনলাইন প্লাটফর্মে বন্ধ রয়েছে বিমানের টিকিট বিক্রি। জানা গেছে, বিমান সার্ভারের ভাড়া পরিশোধ করছে না— এই অভিযোগ তুলে সেবা বন্ধ করে দেয় ট্রাভেল শপ।

অপরদিকে ট্রাভেল শপের অদক্ষতাকে দায়ী করে চুক্তি বাতিল করে বিমান। পরে ২০২১ সালে সেপ্টেম্বর মাসে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের মোবাইল অ্যাপসহ অনলাইন প্ল্যাটফর্মে টিকিটিং ছাড়াও নতুন প্যাসেঞ্জার সার্ভিস সলিউশন (পিএসএস) চালু করতে দায়িত্ব দেয় ‘সেবর করপোরেশন’কে। চুক্তির আওতায়, সেবর সনিক প্যাসেঞ্জার সার্ভিস সিসটেম (পিএসএস) এর মাধ্যমে বিমানের টিকিটিং ব্যবস্থা ডিজিটাল রূপান্তর, রাজস্ব বৃদ্ধি এবং যাত্রীদের অভিজ্ঞতা উন্নত করতে কাজ করছে। কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তার প্রযুক্তির মাধ্যমে যেতে গ্রাহকের চাহিদা বিবেচনা করে বিমানের ফ্লাইট প্ল্যান তৈরিসহ বাণিজ্যিক কার্যক্রমও উন্নত করতে সহায়তা করছে প্রতিষ্ঠানটি।

বিমানের বিপনন বিভাগ ইতোমধ্যে সংশ্লিষ্ট কর্মী এবং ট্রাভেল এজেন্সির নতুন প্যাসেঞ্জার সার্ভিস সলিউশনের বিষয়ে প্রশিক্ষণ সম্পন্ন করেছে। ২৭ ফেব্রুয়ারি থেকে ‘সেবর’ এর মাধ্যমে নতুন প্যাসেঞ্জার সার্ভিস সলিউশন চালু হলে বিমানের টিকিটিং ব্যয় কমে যাবে। একইসঙ্গে যাত্রীরা অলাইনে আরও বেশি বিমানের সেবা গ্রহণ, পরবর্তন, রিফান্ডের সুযোগ পাবেন।
আরো বিস্তারিত পড়ুন: ত্রিশালের সেই ভাইরাল সোহেল গোমস্তাপুরের ‘প্রতারক’ বকুল

শেয়ার করুন

আরো খবর